অনলাইন আয়ের পুর্নাঙ্গ গাইড লাইন [ সিরিজ পর্ব- ৪ ]

0
112

আসসালামুআলাইকুম । ফ্রী টিউন্স ২৪ ডট কম এর পক্ষ থেকে আমি মোঃ ইমরান হোসেন অনলাইন আয়ের গাইডলাইন বাংলা টিউটোরিয়াল এর আজকের পর্বে আপনাদের সবাইকে স্বাগত জানাচ্ছি । গত পর্বে আমরা জেনেছিলাম যে, আসলে এই যে ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসটা, এই মার্কেটপ্লেসটা  কিভাবে কাজ করে ? আজকের পর্বে আমরা জানবো এই মার্কেটপ্লেসগুলোতে আসলে কি কি ধরনের কাজ এখানে পাওয়া যায় ? ঠিক আছে ? তো মার্কেটপ্লেসের সিস্টেম সম্পর্কে আমরা অলরেডি জেনে গেছি । এখন শুধু আমাদের জানতে হবে, এই মার্কেটপ্লেসে আমরা কোন কোন ধরনের কাজ করতে পারি । কি কি ধরনের কাজ সাধারণত থাকে । তো আমরা প্র্যাকটিক্যাল দেখার জন্য একটি সরাসরি মার্কেটপ্লেস www.upwork.com এই মার্কেটপ্লেসে আসলাম । আপনারা যারা গত পর্ব গুলো দেখেননি তারা নিচের লিংকে ক্লিক করে দেখে নিন ।

>>> অনলাইন আয় পুর্নাঙ্গ গাইড লাইন [ সিরিজ পর্ব- ১ ] <<<

>>> অনলাইন আয় পুর্নাঙ্গ গাইড লাইন [ সিরিজ পর্ব- ২ ] <<<

>>> অনলাইন আয় পুর্নাঙ্গ গাইড লাইন [ সিরিজ পর্ব- ৩ ] <<<

Upwork Picture

এখানে দেখলাম যে কিছু সেক্টর আছে কাজ করার, কিছু ক্যাটাগরি আছে । যেগুলো কমন সব চাইতে কমন ক্যাটাগরি একটা হচ্ছে ওয়েব ডেভলপমেন্টে ক্যাটাগরি দেখতে পাচ্ছি, একটা হচ্ছে মোবাইল ডেভলপমেন্ট বা মোবাইল ডেভলপার, একটা হচ্ছে ডিজাইন সেকশন, আর একটা হচ্ছে রাইটিং সেকশন । ঠিক আছে ? একটা ভার্চুয়াল অ্যাসিস্ট্যান্ট যেটা অনলাইনে হেল্প করার । ক্লাইন্টের বিভিন্ন বিষয়ে ক্লায়েন্টকে হেল্প করা । এরপর হচ্ছে কাস্টমার সার্ভিস এজেন্ট, বিভিন্ন কাস্টমার সার্ভিস দেয়া । এরপর হচ্ছে সেলস্ এন্ড মার্কেটিং এক্সপার্ট । যে কাস্টমারের  বিভিন্ন বিষয়ে বিভিন্ন প্রোডাক্ট সেলস বাড়ানো, অনলাইনে মার্কেটিং করা । এরপর আছে অ্যাকাউন্ট এন্ড কনসালটেশন বিভিন্ন ধরনের কনসালটেশন সার্ভিস । এই হচ্ছে মেজর ক্যাটাগরি । এগুলো হচ্ছে টপ । এই ক্যাটাগরির বিভিন্ন কাজ আমরা অনলাইন থেকে পেতে পারি । ঠিক আছে ? তো কম্পিউটারে করা যায় এমন সকল কাজ এখানে আছে । যেটা কম্পিউটার করতে পারবেন । আপনি কম্পিউটারে কি করতে পারবেন ? আপনি যা-ই করেন না কেন সব কাজ অনলাইনে পাওয়া যায় । এমনকি গেমস খেলা আছে । ঠিক আছে ? আপনি অনলাইনে যাই করেন না কেন সব কাজ এখানে অনলাইন থেকে পাওয়া যেতে পারে । যেমন অনেকে আছে যে অনলাইনে ভিডিও দেখার কাছে পাওয়া যায় । যেমন, ধরেন একটা ভিডিও তৈরি করেছে । বাংলা সাবটাইটেল তৈরি করেছেন, এখন আপনাকে বসে বসে মানে তিন ঘন্টার একটা সাবটাইটেল বসে বসে দেখতে হবে । যে মুভির যে কথা কথাটা সাবটাইটেল ঠিক আছে কিনা ? এটা আপনি তিন ঘণ্টা বসে বসে দেখলেন । তো এই টাইপের সহজ কাজ থেকে শুরু করে কম্পিউটারের সফটওয়্যার তৈরি করা পর্যন্ত যাবতীয় কাজ এখানে পাওয়া যায় । সেটা পরিমাণে কম বা বেশি । এই ধরনের যাবতীয় কাজ এখানে পাওয়া যায় । তবে সব চাইতে বেশি যে ক্যাটাগরির  কাজ পাওয়া যায়, সবচেয়ে বেশি পাওয়া যায় সেটা হচ্ছে এসইও এর কাজ পাওয়া যায়, ওয়েব ডিজাইন এবং ডেভলপমেন্ট এর কাজ পাওয়া যায়, গ্রাফিক্স ডিজাইনের কাজ পাওয়া যায়, মোবাইল এবং ডেস্কটপ বা কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন তৈরি করার কাজ পাওয়া যায়, অনলাইন মার্কেটিং এর কাজ পাওয়া যায়, পার্সোনাল হেল্প, পার্সোনাল হেল্প দরকার এই ধরনের কাজ পাওয়া যায় ।

যেমন ধরেন ক্লাইন্ট অনেক ব্যস্ত তার একটা ফেসবুক পেজ আছে । ফেসবুক পেজে প্রচুর মেসেজ আসে । এখন ক্লাইন্ট অনেক ব্যস্ত তার এতো সময় নাই এত মেসেজ এর রিপ্লাই দেওয়ার । তখন কি করলো সে পার্সোনালি আপনাকে হায়ার করলো, আপনি তার ফেসবুকে যে মেসেজ গুলো আছে সেগুলো রিপ্লাই দিলেন । এই ধরণের পার্সোনাল হেল্প এর কাজও এখানে পাওয়া যায় ।

ম্যাজর ক্যাটাগরির কাজ গুলো কি কি ?

এসইও, ওয়েব ডিজাইন, ওয়েব ডেভলপমেন্ট, গ্রাফিক্স ডিজাইন, মোবাইল ও ডেক্সটপ অ্যাপ্লিকেশন তৈরি, অনলাইন মার্কেটিং পার্সোনাল হেল্প ইত্যাদি । এখন কথা হচ্ছে যে এত ধরনের কাজ এই মার্কেটপ্লেসে পাওয়া যায় । তো এই ক্ষেতে আপনাকে কি তাহলে সব ধরনের কাজ শিখতে হবে ? আপনাকে কি সব জানতে হবে ? যে হ্যাঁ তাহলে তো এত কাজ এখানে আমি সব শিখবো । কখনোই এই কাজটা করা যাবে না । একজন লোক সব বিষয়ে দক্ষ হতে পারে না । এটা কিন্তু স্বাভাবিক ব্যাপার । যে আপনি একই সাথে ১০ টা ক্যাটাগরির কাজ জানা অত্যান্ত কঠিন এবং হয়তো এরকম ২, ১ জন থাকতে পারে যারা বিভিন্ন বিষয়ে কাজ করতেছে । হ্যাঁ একাই করতেছে । কিন্তু আপনি আসলে নতুন অবস্থায়, আপনি তো একজন নতুন পর্যায়, এই ক্ষেত্রে আপনাকে সব কাজ শিখতে হবে না । আপনি যেকোন এক বা একের বেশি যে কোন বিষয়ে কাজ শিখতে পারেন । এখানে কোন বাধাধরা রুলস নাই । অনেকে বলে থাকে যে অনলাইনে কাজ করা মানেই এসইও এর কাজ । আবার অনলাইনে কাজ করা মানেই ওয়েব ডিজাইনের কাজ, অনলাইনে কাজ করা মানেই গ্রাফিক্স ডিজাইনের কাজ । না এই ধরনের কোন কথা নাই । এই ধরনের কথা যারা বলে তাদের কাছ থেকে দূরে থাকবেন ।

হ্যাঁ হতে পারে অনলাইনে সবচেয়ে বেশি ওয়ার্কার আছে এসইও, অনলাইনে সবচেয়ে বেশি ওয়ার্কার আছে ওয়েব ডিজাইনার, অনলাইনে সবচেয়ে বেশি ওয়ার্কার আছে গ্রাফিক্স ডিজাইনের কিন্তু তাই বলে আপনাকে যে এসইও শিখতে হবে অনলাইনে কাজ করার জন্য, শুধুমাত্র ওয়েব ডিজাইন বা গ্রাফিক্স ডিজাইনই শিখতে হবে অনলাইনে কাজ করার জন্য । এমন কোন কথা কিন্তু কোথাও নাই । হয়তো বেশি সংখ্যক লোক এসইও এর কাজ করে । কিন্তু তাই বলে শুধুমাত্র এটাই শিখতে হবে এমন কোন কথা নাই । তবে এক্ষেত্রে আমি একটা ছোট কথা যোগ করে রাখি যে, SEO এর কাজটা হচ্ছে এমন একটা কাজ যেহেতু আপনারা হয়তো আইটি বাড়ির এসইও বাংলা ভিডিও টিউটোরিয়াল দেখেছেন । তারা জানেন যে, SEO হচ্ছে সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন । সার্চ ইঞ্জিন এর সাথে সম্পর্ক তাই এসইও এর কাজটা হচ্ছে অত্যন্ত কমন । আপনি পৃথিবীর যে ব্যবসায়ী করেন না কেন, যে চাকরিই করেন না কেন সেটা যদি ইন্টারনেট ভিত্তিক হয় । তবে সেটার একটা প্রধান ভূমিকা থাকবে সার্চ ইঞ্জিনের । যেহেতু সার্চ ইঞ্জিন ছাড়া কোন ব্যবসা সহজে চলবে না । সার্চ ইঞ্জিন কে দিয়েই পৃথিবীর ৯৯.৯৯ শতাংশ অনলাইন বিজনেস চলে । এই জন্য আপনাকে ডেফিনেটলি সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন জানতে হবে । আপনি ভাল করে জানেন বা হালকা আইডিয়া রাখেন ডেফিনেটলি জানতেই হবে ।

এইটা যদি জানেন আপনি দেখবেন অনেক কাজে আপনি বেশ অন্যদের থেকে এগিয়ে থাকবেন । ঠিক আছে ? এটা হচ্ছে একটা কমন বিষয় এর মত জাস্ট লাইক আমাদের অ, আ এর মত এরকম একটা কমন বিষয় । তো এই জন্যই মূলত চারদিকে দেখবেন এসইও এর এত কথা শোনা যায় । কিন্তু তাই বলে এমন না যে আপনাকে অনলাইনে আয় করতে হলে SEO শিখতে হবে আর কিছু শিখবেন না । একদমই এরকম না । এই ধরনের মনোভাবি আপনি এই মুহূর্ত থেকে ভুলে যান । আপনি অনলাইনে যখন কাজ করবেন তখন আপনি একটা বিষয় কাজ শিখতে পারেন, একাধিক বিষয়ে কাজ শিখতে পারেন । তবে এখানে যারা কাজ করে জেনারেলি তারা আস্তে আস্তে কাজ করতে করতে অন্যান্য বিষয় নলেজ রাখে । যেমন আমরা যদি ওয়েব ডিজাইনের কাজ করি আমাদের অন্যান্য বিষয়ে যেমন গ্রাফিক্স ডিজাইন, এনিমেশন এগুলা তো আমাদের কিছু কিছু নলেজ থাকে । একটা কাজের সাথে একটা কাজ লিনকিং । একটা কাজ করতে গেলে হয়তো টুকিটাকি আরেকটা কাজের হেল্প নিতে হতে পারে । তো এজন্য আপনি যেকোন একটা বা একাধিক বিষয়ে দক্ষতা অর্জন করেন । ভালো করে প্র্যাকটিস করেন, খুব ভাল করে শিখেন । শিখে তারপরে আপনি আসেন কাজ করার জন্য চাকরি করার জন্য ।

আপনি যদি কাজ না জেনেই চলে আসেন চাকরি করতে তাহলে, ঐ চাকরি হয়তো কেউ আপনাকে দিবে বিশ্বাস করে, চাকরির প্রথম বার । কিন্তু যখনই দেখবে আপনি কাজটা করতে পারেন নাই, তখনই কিন্তু শেষ, আপনাকে আর কেউ চাকরি দিবে না । তো এই জন্য অনেকে বলে থাকে যে, কাজ শিখেন মিয়া কাজ শিখে শুধু বিট করতে থাকেন । কাজ পেলে কাজ করতে পারবেন । কিন্তু আসলে আমি কথাটা সম্পূর্ণ বিরোধিতা করি । কারণ কাজ না জেনে দক্ষ না হয়ে আপনি যদি আসেন কাজ করতে । তাহলে জীবনে তো কখনো সফল হতে পারবেই না । শুধু ব্যর্থই হবেন ।

এখন তাহলে আপনাদের মনে হয় তো যারা নতুন কিছু কিছু প্রশ্ন আসতেছে যে এই যে, আমি এতক্ষণ বললাম এসইও, ওয়েব ডিজাইন, গ্রাফিক্স ডিজাইন, ইত্যাদি বিভিন্ন ধরনের কাজের কথা আপনাদেরকে আমি বললাম ।

  • এই কাজগুলো আসলে কি ?
  • এগুলো আমরা কিভাবে করবো ?
  • কিভাবে শিখব ?
  • কোন কাজটা আপনার জন্য বেটার হবে ?
  • সেগুলো আমি কিভাবে সিদ্ধান্ত নেব ?
  • কোথা থেকে শিখবো ?

এই প্রশ্ন গুলো আপনাদের মনে হয়তো একটু একটু করে জাগতে শুরু করেছে । সো যেহেতু আমরা টিউটোরিয়াল শুরু করেছি আমরা এগুলো নিয়ে আপনাদের সাথে একটা একটা বিষয়ের কাজ নিয়ে আলোচনা করবো । যে কোন কাজ কিভাবে শিখতে হয় ? কোন কাজ শিখতে হলে কি কি জানতে হয় ? কোন কাজ শিখতে হলে আপনাকে কোথা থেকে হেল্প নিতে হবে ? আপনি কিভাবে বেস্ট ওয়েতে শিখতে পারেন ? এবং কিভাবে এই কাজ গুলো করে প্র্যাকটিস করে আপনি এই ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরে সফলতা অর্জন করতে পারেন । এই বিষয়গুলো আমরা আগমী পর্বে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো । সেই পর্বগুলোর আমন্ত্রণ রইল । আজকের পর্ব এখানেই বিদায় নিচ্ছি । বিদায়ের সময় একটা কথা আবারও বলতেছি কাজ শিখেন, কাজ না শিখে কখনোই এই চিন্তা করবেন না যে আপনি সফল হতে পারবেন । পরিশ্রম ছাড়া, কাজ শেখা ছাড়া, কখনোই সফলতা অর্জন করা সম্ভব না । ভাল থাকুন সুস্থ থাকুন । আগামী পর্বে আপনাদের সবাইকে আমন্ত্রন জানাচ্ছি । “আল্লাহ হাফেজ”

ধন্যবাদ সবাইকে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here